পাওনা টাকা ফেরত চাওয়ায় হামলা: জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে সংবাদ সম্মেলন

মো: হারুন অর রশিদ | প্রকাশিত: ২৯ জুলাই ২০২৩ ২৩:০৩; আপডেট: ১৭ জুলাই ২০২৪ ১৭:০৯

ছবি: শেরপুর ট্রিবিউন

বন্ধকি জমির পাওনা টাকা ফেরত চাওয়াতে ইউপি সদস্যের হামলার শিকার হয়েছেন এক দিনমজুর। ভুক্তভোগী ঐ দিনমজুরের নাম আব্দল মোতালেব। সে শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার নয়াবিল ইউনিয়নের আন্ধারুপাড়া গ্রামের মৃত আব্দুস সামাদের ছেলে। শনিবার (২৯ জুলাই) দুপুরে উপজেলার শিমুলতলা ব্রীজপাড় এলাকায় হামলার বিচার দাবী করে জীবনের নিরাপত্তা ও পাওনা টাকা ফেরত চেয়ে সংবাদ সম্মেলন করেছে দিনমজুরের পরিবার।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে ভুক্তভোগী দিনমজুর আব্দুল মোতালেব বলেন, তিনি একজন ভূমিহীন দিনমজুর। নিজের বাড়িভিটা বা আবাদী জমি বলতে কিছুই নেই তার। চার সন্তান নিয়ে থাকেন অন্যের বাড়িতে। বিগত ৪ বছর আগে নয়াবিল ইউনিয়নের আন্ধারুপাড়া গ্রামের ইউপি সদস্য আজহার আলীর পিতা কাশেম আলীর কাছ থেকে ৫০ শতাংশ জমি এক লাখ টাকার বিনিময়ে লিখিত বন্ধকী দলিলমুলে ক্রয় করেন। পরবর্তীতে আবাদ করার জন্য জমি বুঝে নিতে চাইলে জমির মালিক টালবাহানা শুরু করেন। এ নিয়ে দিনমুজুর আব্দুল মোতালেব নয়াবিল ইউপি চেয়ারম্যানের নিকট বিচার দাবী করেন। কিন্তু এতে কোন সুরাহা না হওয়াতে তিনি শেরপুর ডিবি পুলিশ কার্যালয়ে একটি অভিযোগ দাখিল করেন। শেরপুর ডিবি কার্যালয়ে উভয় পক্ষকে ডেকেও বিষয়টি সুরাহা হয়নি। ডিবি কার্যালয়ে থেকে দিনমজুর আব্দুল মোতালেব গত বৃহস্পতিবার (২৭ জুলাই) রাতে বাড়ি ফেরার পথে শিমুলতলা ব্রীজপাড় এলাকায় এলে ইউপি সদস্য আজহার আলীর নেতৃত্বে কতিপয় দুর্বৃত্ত মোতালেবের পথরোধ করেন এবং বন্ধকি জমির দলিল ছিনিয়ে নিতে চান। এ সময় বন্ধকি জমির ওই দলিলটি দিতে না চাইলে তারা মোতালেবকে মারপিট শুরু করে। এতে অবস্থা বেগতিক দেখে একপর্যায়ে ডাক চিৎকার শুরু করে দৌড়ে শিমুলতলা গ্রামের হাসান আলীর বাড়িতে মোতালেব আশ্রয় নেন এবং ৯৯৯ নম্বরে কল দেন। পরে নালিতাবাড়ী থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে রাতেই মোতালেবকে উদ্ধার করে তার বাড়ি পৌঁছে দেন।

ভুক্তভোগী মোতালেব আরোও জানান, ইউপি মেম্বার আজহার তাকে বন্ধকি মুল দলিল দেওয়ার জন্য প্রাণনাশের হুমকি দিচ্ছে। বর্তমানে সে পরিবার নিয়ে নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে। তাই প্রশাসনের কাছে সে জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে হামলার বিচার ও কষ্টার্জিত বন্ধকি জমির এক লাখ টাকা ফেরত পেতে ব্যবস্থা নেওয়ার দাবী জানান।

এ বিষয়ে জানতে চেয়ে অভিযুক্ত নয়াবিল ইউপি সদস্য আজহার আলীর মুঠোফেনে একাধিকবার কল দিলে তা বন্ধ পাওয়া যায়।





এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর
Top