উপজেলা চেয়ারম্যানের দাবীতে মেগা প্রকল্পের ডিজিটাল ভিলেজের একটি হবে নালিতাবাড়ীতে

মো: হারুন অর রশিদ | প্রকাশিত: ২০ অক্টোবর ২০২২ ১৭:২৪; আপডেট: ২০ অক্টোবর ২০২২ ১৭:২৯

ছবি: শেরপুর ট্রিবিউন

শেরপুর জেলার নালিতাবাড়ী উপজেলার কাকরকান্দি গ্রামকে বাংলাদেশের ১০ টি ডিজিটাল ভিলেজের একটি করার ঘোষণা দিলেন তথ্য ও প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনায়েদ আহমেদ পলক এমপি।

নালিতাবাড়ী উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো: মোকছেদুর রহমান লেবুর দাবীর প্রেক্ষিতে প্রতিমন্ত্রী তাৎক্ষণিক দুইজন সচিবকে কাকরকান্দি গ্রামের নাম লিপিবদ্ধ করতে নির্দেশনা দেন।

এছাড়াও তিনি আদিবাসী নারী ফ্রীল্যান্সার "কৃষ্ণা রাণী দিও" কে সংবর্ধনা প্রদান করেন এবং বলেন ফ্রীল্যান্সিং ও তথ্য প্রযুক্তি খাতে আদিবাসীদের সর্বাত্মক সহযোগিতা করা হবে৷

ডিজিটাল ভিলেজ কি?

বাংলাদেশ সরকারের তথ্য ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয় সারা বাংলাদেশের ১০ টি গ্রামকে ডিজিটাল ভিলেজে রূপান্তরিত করার লক্ষ্যে একটি মেগা প্রকল্প অনুমোদন দিয়েছে।

ডিজিটাল ভিলেজে থাকবে আইসিটি সেন্টার, আইওটি, ডিজাইনালিটিক্স, ড্রোন, ফ্রী ইন্টারনেট জোন, একটি সাইবার হল।

ওই গ্রামের প্রতিটি প্রতিষ্ঠানে থাকবে তথ্য প্রযুক্তি সুবিধা, বাস, ট্রেন, বিমান টিকিট কাটার জন্য থাকবে ডিজিটাল সুবিধা, প্রতিটি বাজারে থাকবে ডিজিটাল লেনদেন ব্যবস্থা, ডিজিটাল ভিলেজের তরুন যুবকদের আইসিটি ট্রেনিংয়ের জন্য থাকবে সেন্টার, আধুনিক উপকরণ ও প্রশিক্ষক। এছাড়াও থাকবে নানা আধুনিক সুযোগ সুবিধা।

সারা দেশ থেকে ভাগ্যবান ১০ টি গ্রামের ১ টি হতে চলেছে শেরপুর জেলার নালিতাবাড়ী উপজেলার কাকরকান্দি গ্রাম। এ প্রকল্প বাস্তবায়নে সরকার বিপুল বাজেট অর্থায়ন করছে।





এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর
Top